ডার্ক ওয়েব মাদক, ধৃত ২ তরুণী সহ ৩

0
3

ডার্ক ওয়েব ব্যবহার করে পার্সেলের মাধ্যমে মারিজুয়ানা বা গাঁজা ভিনদেশ থেকে আমদানি করার অভিযোগে দুই তরুণী সহ তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। টানা তিনদিন অভিয়ান চালিয়ে বিয়াল্লিশটি পার্সেল থেকে কুড়ি কেজির মারিজুয়ানা উদ্ধার হয়েছে। নার্কোটিক্সের দাবি, ক্যালিফোর্নিয়া, কানাডা থেকে মাদক আনার জন্য ভুয়ো আধার কার্ডও বানানো হয়েছিল।

নার্কোটিক্স দফতর সূত্রে খবর, আমেরিকার ক্যালিফোর্নিয়া-কানাডা থেকে উন্নত প্রজাতির মারিজুয়ানা বা গাঁজা কুরিয়ারের মাধ্যমে দেশে আসছে এমন খবর দীর্ঘদিন ধরেই পাওয়া যাচ্ছিল। আর সেই তথ্যে ভরসা রেখেই ইন্টারন্যাশনাল কু্রিয়ার সার্ভিসের ওপর নজরদারি শুরু করা হয়। এই অবস্থায় গত মাসের সাতাশ তারিখ কলকাতায় খেলনা রয়েছে বলে একটি পার্সেল এসে পৌছয়। আর সেই পার্সেল দেখে সন্দেহ হওয়ায় নার্কোটিক্স তল্লাশি চালিয়ে মাদক উদ্ধার করে। এরপরই তদন্তে নেমে গোয়েন্দারা জানতে পারেন, বছর পঁচিশের শ্রদ্ধা সুরানা নামে এক তরুণী নিজের নাম পরিচয় গোপন করে কলকাতায় সিমরন সিং পরিচয়ে বসবাস করত। নিজেকে সিমরন হিসেবে পরিচয় দিতে জাল আধার কার্ডও তৈরি করিয়েছিল। শ্রদ্ধা ওরফে সিমরন ডার্ক ওয়েব ব্যবহার করে বিদেশ থেকে মাদক আমদানি করত। ওই তরুণী-ই মাদক পাচার চক্রের মূল পাণ্ডা বলেও দাবি করেছে নার্কোটিক্স। আর এরপরই ওই তরুণী, কু্রিয়ার সংস্থার ডেলিভারি বয় করণ কুমার গুপ্তা এবং তৃণা ভাটনগর নামে মাদকের একজন গ্রাহককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। চক্রের সঙ্গে আর কারা জড়িত তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।