বাড়ির দেওয়ালে করোনা সচেতনতা

0
5

Last Updated on by

বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর গ্রামের দেওয়ালে রং তুলির ছোয়া তে ফুটে উঠছে সচেতনতার এক অনন্য শিল্প কলা। গ্রামের দেওয়াল গাত্রে ফুটে উঠেছে গ্রামের মানুষকে মাস্ক পরার সচেতনতা নিয়ে এক অভিনব প্রচার।

এই উদ্যোগ বাঁকুড়ার প্রাচীন শহর বিষ্ণুপুরের কয়েকজন উদ্যোমী যুবক-যুবতীর। যারা নিজেদের উদ্যোগে রং তুলি নিয়ে ছুটে গিয়েছেন শহর ছেড়ে দূরে শিয়ালকোন্দায় নামে এক আদিবাসী গ্রামে। একদিন বেড়াতে গিয়ে এই উদ্যোগী যুবকদের চোখে পড়ে প্রত্যন্ত আদিবাসী গ্রামে মানুষের মধ্যে সচেতনতা অভাব।  করোনা পরিস্থিতিতে ছোট্ট গ্রামের আদিবাসী মানুষজনকে সচেতনতার প্রয়োজন মনে করে তারা গ্রামে পৌঁছে গ্রামের মাটির দেওয়ালে দেওয়ালে রং তুলি দিয়ে সচেতনতা ছবি আঁকতে শুরু করেন। প্রায় ১০ দিন ধরে ওই যুবক যুবতীর দল গ্রামে গিয়ে গ্রামের দেওয়াল গুলিতে রঙিন ছবি এঁকে ফুটিয়ে তুলেছেন গ্রামের মানুষকে সচেতন করা এক অভিনব চিত্রকলা।  দেওয়াল গাত্রে উদ্যোগী শিল্পীদের প্রচেষ্টায় ফুটে উঠেছে যামিনী রায় শিল্পকলার আদলে বর্তমান পরিস্থিতির মেলবন্ধন ঘটিয়ে সচেতনতা বার্তা। দেওয়াল গাত্রে ফুটে উঠেছে মাস্ক পরার এক অভিনব সচেতনতা। অদৃশ্য ভাইরাস থেকে মুক্তির জন্য মাস্ক পরা বাধ্যতামূলক।  বর্তমান প্রেক্ষাপটে দাঁড়িয়ে গ্রামের মানুষের মধ্যে মাস্ক পরার  প্রয়োজনীয়তা বৃদ্ধি করতে দেওয়ালের নানান আঁকা ছবি দেখে এই গ্রামের মানুষ  যেমন সচেতন হবেন এবং  তেমনি গ্রামে আসা বাইরের মানুষও সচেতন হবেন। দেওয়ালের আঁকা ছবিতে সামাজিক জীবনযাত্রা,  দেব দেবী এমন নানান ধরনের ছবিতে ফুটে উঠেছে মাস্কের ব্যবহার। সবমিলিয়ে গ্রামের আদিবাসী এই প্রান্তিক মানুষগুলোর মধ্যে সচেতনতা বৃদ্ধি করতে এই প্রয়াস জানাচ্ছেন উদ্যমী শিল্পীরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here