কঙ্গনার সঙ্গে টুইট বিতর্কে দিলজিৎ

0
57

কৃষি আইনের বিরোধিতায় আন্দোলনে নেমেছেন উত্তর ভারতের কৃষকরা। কৃষক আন্দোলন নিয়ে মুখ খুলে বিতর্কে জড়িয়ে পড়েছেন কঙ্গনা রানাওয়াত। তাঁর বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন অভিনেতা দিলজিৎ দোসাঞ্ঝ। কঙ্গনার সঙ্গে টুইট যুদ্ধের পর দিলজিতের টুইটার ফলোয়ার বেড়েছে ঝড়ের গতিতে।

মাত্র ১ দিনে একলাফে প্রায় ৪ লক্ষ ফলোয়ার বেড়েছে দিলজিৎ দোসাঞ্ঝের।ঘটনার সূত্রপাত ২৭ নভেম্বর। কৃষক আন্দোলনে যোগদানকারী মহিন্দ্র কউরকে ,শাহিনবাগ দাদি, বিলকিস বানোর সঙ্গে গুলিয়ে ফেলেছিলেন কঙ্গনা।দুই বৃদ্ধার পাশাপাশি ছবি পোস্ট করে টুইটে অভিনেত্রী মন্তব্য করে ছিলেন, একে ১০০ টাকায় পাওয়া যায়। যদিও ভুল করছেন বুঝতে পেরে পরে টুইটটি মুছে দিয়েছেন কঙ্গনা। যদিও ততক্ষণে তাঁর টুইটটি ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।আর এরপরেই কঙ্গনার বিরুদ্ধে সরব হয়েছেন নেটিজেনদের একাংশ। কঙ্গনার কথার প্রতিবাদ করেছেন দিলজিৎ দোসাঞ্ঝ। কৃষক আন্দোলনে যোগদানকারী বৃদ্ধা মহিন্দর কউরের একটি ভিডিও পোস্ট করে দিলজিৎ কঙ্গনার উদ্দেশে লিখেছেন,এটা শুনে নিন কঙ্গনা,এতটা অন্ধ কেউ কী করে হতে পারে। এই ঘটনা ঘিরেই দিলজিৎ দোসাঞ্ঝের সঙ্গে কঙ্গনার টুইট যুদ্ধ। অন্যদিকে অভিনেত্রী যাতে অযথা চিৎকার না করেন, তার পরামর্শ দিয়েছেন দিলজিৎ।দিলজিতের পাশে দাঁড়িয়েছেন বক্সার বিজেন্দর সিং, গায়ক ও সুরকার মিকা সিংয়েরাও। মিকা টুইট করে লিখেছেন, কঙ্গনার অফিস ভাঙার সময় তিনি তাঁর পাশে দাঁড়িয়েছিলেন। কিন্তু এখন তাঁর মনে হচ্ছে তিনি ভুল করেছেন। এই ঘটনার জেরে কঙ্গনাকে আইনি চিঠি পাঠিয়েছেন পাঞ্জবের এক আইনজীবী হরকম সিং।এদিকে বিতর্কের মাঝে বেশ কয়েকটি টুইট করেছেন কঙ্গনা। লিখেছেন,কৃষকদের পাশেই আছেন, গত বছর কৃষকদের হয়ে মুখ খুলেছিলেন। এর জন্য দানও করেছিলেন। কৃষকদের সমস্যা সম্পর্কে সোচ্চার হয়েছিলেন, প্রার্থনা করেছিলেন। শেষপর্যন্ত এই কৃষিবিলের মত বৈপ্লবিক পদক্ষেপ করা হয়।