রিপোর্ট চাইলেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক, জামালপুরে মৃত ৩

0
90
তৃণমূল বিজেপি সংঘর্ষে পূর্ব বর্ধমানের জামালপুরে এক মহিলা সহ তিনজনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছে আরও বেশ কয়েকজন।
সংঘর্ষের জেরে একাধিক বাড়ি ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। অন্যদিকে, রাজ্যের থেকে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের রিপোর্ট চাওয়ার দিনেই কোচবিহারের শীতলকুচিতে বিজেপি সমর্থককে গুলি করে খুনের অভিযোগ উঠেছে। উত্তর চব্বিশ পরগনার জগদ্দলে বিজেপি কর্মী ছেলেকে বাঁচাতে গিয়ে দুষ্কৃতীদের মারে মৃত্যু হয়েছে প্রৌঢ়া মায়ের। ভোটের ফল প্রকাশের পরেই জগদ্দলে বিজেপি কর্মী ছেলেকে মারধর শুরু করে তৃণমূল কংগ্রেস আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। আর ছেলেকে মার খেতে দেখে মা বাঁচাতে যান। সব ক্ষেত্রেই তৃণমূলের দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছে বিজেপি। অভিযোগ, শীতলকুচির ছোট শালবাড়ি অঞ্চলের বাসিন্দা বিজেপি সমর্থক মানিক মৈত্রকে লক্ষ্য করে গুলি চালায় তৃণমূল কংগ্রেস আশ্রিত দুষ্কৃতীরা। গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন ওই বিজেপি সমর্থক। তড়িঘড়ি তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালেনিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু পথেই মৃত্যু হয় মানিকের। অন্যদিকে, তৃণমূল জানিয়ে, বিজেপির হামলায় বিভাস বাগ ও শাহজাহান শাহ নামে দুই তণমূল কর্মীর মৃত্যু হয়েছে। আর বিজেপি দাবি করেছে, তৃণমূলের হামলায় কাকলি ক্ষেত্রপাল নামে তাদের এক মহিলা কর্মীরমৃত্যু হয়েছে।