আইএসএফ- র সঙ্গে জোট, প্রশ্ন সিপিএমে

0
16

বিধানসভা ভোটে আইএসএফ-র মতো নতুন দলের সঙ্গে জোট কেন, সিপিএমের রাজ্য কমিটির বৈঠকে এমন প্রশ্ন উঠতেই সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র জানিয়ে দিয়েছেন, নির্বাচনে পরাজয় হয়েছে বলেই জোট ভেঙে দেওয়ার মতো অসৌজন্যের রাস্তায় হাঁটবে না দল।

বিধানসভা ভোটে ভরাডুবির পরে শনিবার দলের রাজ্য কমিটির সদস্যদের সঙ্গে ভার্চুয়ালি বৈঠক করেছেন সিপিএমের রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্র। আর ওই বৈঠকেই এমন আইএসএফ- র সঙ্গে জোট নিয়ে প্রশ্ন ওঠায় রাজ্য সম্পাদক সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, জোট ভাঙবে না দল। এই অবস্থায় বামফ্রন্টের কোনও শরিক যদি জোট ভেঙে বেরিয়ে যেতে চায়, সেক্ষেত্রে সিপিএমের কিছু বলার নেই। তবে, দল যে করবে না, তা পরিষ্কার করে দিয়েছেন তিনি। বস্তুত, শনিবারের বৈঠকে তন্ময় ভট্টাচার্য, কান্তি গাঙ্গুলি সহ দলের ক্ষুব্ধ নেতাদের বিষয়টিও উঠেছে। বিধানসভা ভোটের পরেই দলীয় নেতৃত্বের বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে মুখ খুলেছিলেন তন্ময় ভট্টাচার্য। আর সেই জায়গা থেকে তন্ময় ভট্টাচার্যকে তিন মাসের জন্য সেন্সর করেছে দল। যার অর্থ, আগামী তিন মাস সংবাদমাধ্যমে কোনও প্রতিক্রিয়া দিতে পারবেন না তিনি। সিপিএম সূত্রে খবর, আর কান্তি গাঙ্গুলির সঙ্গে রাজ্য সম্পাদক সূর্যকান্ত মিশ্রের দীর্ঘ বাদানুবাদ হয়েছে। এদিকে, এরই মধ্যে আইএসএফ-র সঙ্গে জোট নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে দলের অন্দরে। জেলা নেতৃত্বের একাংশ সরাসরি বলেছেন, আইএসএফ-র মতো নতুন দলের সঙ্গে জোট কেন, তা মানুষকে বোঝানোই যায়নি। বরং মানুষের মধ্যে উল্টো প্রতিক্রিয়া হয়েছে। আর অন্য অংশ জোট পদ্ধতি নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন। তাদের বক্তব্য, বিষয়টি নিয়ে রাজ্য কমিটিতে আলোচনাই হয়নি। ফলে, জেলা নেতার জাতেই পারেননি এ বিষয়ে তাদের অবস্থানের বিষয়টি। তাদের একমাত্র আসন ছাড়ার বিষয়টি চূড়ান্ত করতে বলা হয়েছিল। এই অবস্থায় জবাবি বক্তব্যে সূর্যকান্ত মিশ্র মানুষের সমর্সন ফেরত পেতে সব কিছু নতুন করে শুরু করার নির্দেশ দিয়েছেন।