আদালতে ক্যাটরিনা-ভিকির বিয়ে 

0
12

ক্যাটরিনা-ভিকির বিয়ে নিয়ে এই মুহূর্তে গরম বলিউড। কবে, বিয়ের আয়োজন কোথায় হচ্ছে, কি থাকছে আয়োজনে, কারা পাচ্ছেন দাওয়াত, এ নিয়ে একের পর এক খবর প্রকাশ করছে গণমাধ্যমগুলো।

মাস কয়েক আগে জানা গিয়েছে রাজস্থানের ৭০০ বছর পুরোনো দুর্গে বসবে ক্যাটরিনা-ভিকির রাজকীয় বিয়ের আসর। ৭ থেকে ৯ ডিসেম্বর রাজস্থানের সোয়াই মাধোপুর জেলার বারওয়ারা সিক্স সেন্সেস ফোর্টে জুটির বিয়ে হচ্ছে।  এবার অন্য গল্প,রাজস্থানের পুরোনো ওই দুর্গে ধর্মীয় রীতিনীতি মেনে বিয়ে সারার আগেই কোর্ট ম্যারেজ সারছেন ক্যাটরিনা-ভিকি। কারণ ভারতের নাগরিক নন ক্যাটরিনা। ব্রিটিশ পাসপোর্টধারী তিনি। স্বভাবতই ভিকি-ক্যাটের আইনি বিয়ের প্রক্রিয়া একটু আলাদা হবে। সেই সব ঝক্কি শেষ করেই রাজস্থানে বিয়ের আয়োজনের জন্য রওনা দেবেন।খবর, বিয়ের আচার-অনুষ্ঠান শুরুর জন্য রাজস্থানে উড়ে যাওয়ার আগে আগামী সপ্তাহে মুম্বাইতে আইনি বিয়ের পর্ব সেরে ফেলবেন তারকা দম্পতি,ক্যাটরিনা-ভিকি।রাজস্থানে গিয়ে বিয়ের আয়োজন সারবেন তার আগেই মিসেস ভিকি হয়ে যাবেন ক্যাটরিনা।অন্যদিকে,বিয়ে নিয়ে রহস্য খোলাসা করছেন না ক্যাটরিনা-ভিকি। বিশেষ দিনের সমস্ত মুহূর্ত যাতে ইন্টারনেটে ফাস না হয়ে যায় তার জন্য বিশেষ উদ্যোগ নিয়েছেন দু’জনে। জানা গেছে বিয়ের ছবি ফাঁস হওয়া আটকাতে ক্যাটরিনা-ভিকির বিয়ের কার্ডেই বিশেষ শর্ত জুড়ে দেওয়া হয়েছে। দুই পরিবার ও কাছের মানুষদের উপস্থিতিতেই বিয়ে করবেন ক্যাটরিনা-ভিকি। তাদের কাছে বর-কনের অনুরোধ বিয়েবাড়িতে যেন কেউ মোবাইল ফোন ব্যবহার না করে। আর বিয়ের ভেন্যুতে মোবাইল নিয়ে এক্কেবারেই ঢোকা যাবে না। যে ইভেন্ট ম্যানেজমেন্ট তাদের বিয়ের দায়িত্ব নিয়েছে, তাদেরও কড়া বার্তা দিয়েছেন ক্যাটরিনা ও ভিকি। অনুষ্ঠানে যারা বিয়ের ছবি তুলবেন তারাও, ক্যাটরিনা ও ভিকির অনুমতি ছাড়া ছবি আপলোড করতে বা অন্য কাউকে হস্তান্তর করতে পারবেন না।