শীতকালে সাইনাসের সমস্যা

0
9

শীতকালে সাইনাসের সমস্যায় ভোগেন অনেকেই। সাইনাস ইনফেকশন হলো একটি নাকের সমস্যা। অ্যালার্জি বা ব্যাকটেরিয়াল সংক্রমণ বা সর্দির কারণে হয়ে থাকে এই সমস্যা। শীতকালের সময় এই সমস্যা আরো বেড়ে যায়।

সাইনাসের কারণে শরীরে মিউকাস বৃদ্ধি পেতে থাকে। যার কারণে মাথাব্যথা ও শ্বাস নিতেও অসুবিধা হয়। তবে বেশ কিছু ঘরোয়া পদ্ধতিতে এই সমস্যা থেকে মুক্তি মিলতে পারে। যেমন, বেশি করে জল খান।  দেহে জলের অভাবে সাইনাসের সমস্যাগুলো আরো বেড়ে যায়। যদি সাইনাসের সমস্যা থাকে তবে সর্বদা নিজেকে হাইড্রেটেড রাখুন।এ জন্য প্রচুর পরিমাণে জল, চিনি ছাড়া চা পান করুন। এতে দেহ থেকে মিউকাস বের হয়ে যায়। যাঁদের সাইনাসের সমস্যা রয়েছে তাঁদের উচিত অ্যালকোহল এবং ধূমপান থেকে দূরে থাকা। এই সময় ভিটামিন এ জাতীয় খাবার খান। আইসক্রিম, পনির এবং দই জাতীয় জিনিস এড়িয়ে চলাই ভালো। এ ছাড়াও গোলমরিচ সাইনাসের জন্য খুব উপকারি। অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি এবং অ্যান্টি-ব্যাকটেরিয়াল বৈশিষ্ট্য রয়েছে যা সর্দি দূর করতে সহায়তা করে। আপেল সিডার ভিনেগার এবং লেবুর রসও উপকারী হয়। সাইনাসের খুব সাহায্য করে গরম ভাপ। এক পাত্র জল ৩ ফোঁটা পিপারমিন্ট তেল,৩ ফোঁটা রোসমেরি তেল, ২ ফোঁটা ইউক্যালিপটাস তেল দিয়ে হালকা তোয়ালে দিয়ে মুখ ঢেকে ভেপার নিন। এটি নাক খুলতে সাহায্য করে। অনেকটা আরাম বোধ করবেন।যদি চাপ্রেমী হন তাহলে হলুদ এবং আদা চা খেতে পারেন। হলুদে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি গুণ রয়েছে। হলুদ ও আদা চা মিউকাস কমাতে সাহায্য করে এবং এটি বন্ধ নাকও খোলে।আয়ুর্বেদিক চিকিৎসায় হলুদ এবং আদা চা এর ব্যবহার রয়েছে। এ ছাড়াও এক চা চামচ মধুর সঙ্গে মেশানো আদার রস দিনে ২-৩ বার খাওয়া যেতে পারে।অ্যাপল সিডার ভিনিগার সাইনাসে প্রাকৃতিক প্রতিকার হিনেবেও কাজ করে। এক কাপ গরম জলেতে ৩ টেবিল চামচ আপেল ভিনিগার দিয়ে খেলে সাইনাসের চাপ কমে যায়। লেবু ও মধু দিয়েও খাওয়া যেতে পারে। শীতের এই সময়তে গরম গরম স্যুপ খেতে পারেন। গরম স্যুপ দেহের এই সমস্যা দূর করতে সহায়ক।